A PHP Error was encountered

Severity: Warning

Message: mysqli::real_connect(): Headers and client library minor version mismatch. Headers:100324 Library:30120

Filename: mysqli/mysqli_driver.php

Line Number: 201

Backtrace:

File: /home/bnnews24/public_html/application/controllers/SS_shilpi.php
Line: 6
Function: __construct

File: /home/bnnews24/public_html/index.php
Line: 316
Function: require_once

রিবেইরোর গোলে চিলির বিপক্ষে কষ্টের জয় ব্রাজিলের
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৭ জৈষ্ঠ্য ১৪২৯, ১৮ রজব ১৪৪৪

রিবেইরোর গোলে চিলির বিপক্ষে কষ্টের জয় ব্রাজিলের


প্রকাশ: ৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১১:৫১ পূর্বাহ্ন


রিবেইরোর গোলে চিলির বিপক্ষে কষ্টের জয় ব্রাজিলের

জয় দিয়েই কাতার বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব শুরু করল ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা। ভেনিজুয়েলার মাঠে ৩-১ গোলে দুর্দান্ত জয় পেয়েছে আর্জেন্টিনা।


তবে চিলিকে হারাতে কষ্টটা বেশি করতে হয়েছে ব্রাজিলকে। কেননা করোনা ইস্যুতে দলের একাধিক সেরা তারকাকে মাঠে পাননি কোচ তিতে।

নিয়মিত একাদশের বেশ কিছু খেলোয়াড়কে ছাড়াই বৃহস্পতিবার রাতে চিলির বিপক্ষে মাঠে নামে ব্রাজিল। ন্যূনতম ব্যবধানে জয় নিয়ে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছেন সেলেকাওরা। পাশাপাশি বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের শীর্ষস্থান ধরে রাখল পেলের দেশ।

স্তাদিও মনুমেন্তাল দাভিদ আরেয়ানোয় অবশ্য নেইমার, রেইবোর মতো সেরা তারকারা ছিলেন। আর এ দুজনের নৈপুণ্যেই ১-০ গোলের ব্যবধানে চিলিকে হারিয়েছে ব্রাজিল।

প্রথম সারির খেলোয়াড়রা না থাকায় রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড ভিনিসিয়াস জুনিয়রকে নামিয়েছিলেন কোচ তিতে। কিন্তু ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো ব্রাজিলের প্রথম একাদশের হয়ে খেলতে নেমে জ্বলে উঠতে পারেননি ভিনিয়াস।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই তাকে তুলে নেন কোচ তিতে। তার জায়গাতে মাঠে নামেন এভারটন রিবেইরো। আর সেই রিবেইরোই করলেন দলের জয়সূচক একমাত্র গোলটি।

প্রথমার্ধে বল দখলের লড়াইয়ে ব্রাজিল এগিয়ে থাকলেও গোল পায়নি।ক্ষুরধার আক্রমণ তেমন একটা লক্ষ্য করা যায়নি।

গোলশূন্য অবস্থায় শেষ হয় প্রথমার্ধ। দ্বিতীয়ার্ধে নেমেও অনেকটা সময় গোলমুখ খুলতে পারছিল না ব্রাজিল।

অবশেষে ৬২তম মিনিটে কারিশমা দেখান নেইমার ও রিবেইরো। ডি-বক্সের কাছাকাছি নেইমারকে বল বাড়িয়ে দেন রিবেইরো। নেইমার গোলপোস্ট বরাবর শট নেন। পিএসজি তারকার সেই শট ঠেকিয়ে দেন চিলির গোলরক্ষক ক্লদিও ব্রাভো।

কিন্তু বল নিজের আয়ত্বে নিতে পারেননি। এ সময় ফিরতি চেষ্টায় ফাঁকা জালে বল জড়িয়ে দেন রিবেইরো। এভারটন ফরোয়ার্ড লিড এনে দেন সেলেকাওদের।

আর এর পরবর্তী ৩৫ মিনিটের মতো খেলায় কেউ গোলের দেখা পায়নি। রেফারির শেষ বাঁশিতে ওই এক গোলেই জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ব্রাজিল।

শেষ দিকে অবশ্য ব্যবধান বাড়ানোর দারুণ সুযোগ পেয়েছিলেন নেইমার। গোলমুখ ছেড়ে বেরিয়ে এসেছিলেন ব্রাভো। এমন ফাঁকা জাল পেয়েও স্কোরশিটে নাম লেখাতে পারেননি নেইমার।

তাতে অবশ্য ক্ষতি হয় ব্রাজিলের। জয় ধরে রাখে কনমেবল বাছাইপর্বে শীর্ষস্থান অক্ষুণ্ন রেখেছে তিতের শিষ্যরা। সাত ম্যাচ খেলে সবকটিতে জিতে ২১ পয়েন্ট নিয়ে লিকার শীর্ষে ব্রাজিল। সমান ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে আছে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা।


   আরও সংবাদ